Welcome to MLM NEWS 24, the 1st MLM news site for Bangladesh. ( mlmnews24.com / www.black-iz.com ) . . . ....... | ABOUT | BLOG | SUBCRIBE WITH US |

 



| this news is published by MLM NEWS 24 (mlm.black-iz.com)


হায় হায় কোম্পানি - ১ বাংলাদেশ প্রতিদিনের সংবাদ

 

দেড় লাখ কোটি টাকা লুট হলো যেভাবে

Report From : Dhaka (Bangladesh Protidin)
MLM NEWS 24 : Bangladesh Protidin
News of : MLM Industries Bangladesh
News By : Bangladesh Protidin
News Date : 17th Oct. 2012

ভুয়া এনজিও, এমএলএম ও ভুঁইফোড় হায় হায় কোম্পানিগুলো গত ১৪ বছরে দেড় লাখ কোটি টাকা লুটে নিয়েছে। প্রতারণার শিকার হয়েছেন কম হলেও চার কোটি মানুষ। সাধারণ মানুষের কষ্টে জমানো আমানত লুটে নেওয়া ১২২টি হায় হায় কোম্পানি উধাও হয়ে গেছে ইতোমধ্যে। তবে এসব কোম্পানির পরিচালনাকারী 'প্রতারকরা' বহাল তবিয়তেই রয়েছেন। তারা নিত্যনতুন নামে প্রতারণার ভিন্ন ভিন্ন কৌশল নিয়ে দেশজুড়ে দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন। কোনোভাবেই বন্ধ করা যাচ্ছে না তাদের লুটপাট। প্রতারকচক্র সম্পর্কে পত্রপত্রিকায় হৈচৈ হলেই কেবল সরকারি আইন প্রয়োগকারী সংস্থাগুলো নড়েচড়ে ওঠে। কয়েকদিন নানা ভঙ্গিমায় তদন্ত চলে, এরপর সবকিছুই চাপা পড়ে যায়। শুধু থামে না সর্বস্ব হারানো লোকজনের হাহাকার। প্রতারণা, হৈচৈ, তদন্ত আর ধামাচাপার অভিন্ন স্টাইলে বছরের পর বছর ধরেই চলছে লুটপাটের এ দৌরাত্দ্য।

 

শুধু রাজধানীতেই নয়, দেশজুড়েই ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে উঠছে মাল্টি লেভেল মার্কেটিং (এমএলএম) কোম্পানি। ২০০২ সালে দেশে এমএলএম কোম্পানি ছিল ১৬টি। বর্তমানে সরকারি হিসেবে ৬৯টি এমএলএম কোম্পানির অনুমোদন দেওয়ার কথা বলা হলেও দেশে দুই শতাধিক এমএলএম কোম্পানি কাজ করছে। এসব ছাড়াও ভারত, মালয়েশিয়া, শ্রীলঙ্কা ও পাকিস্তান থেকে নতুন নতুন সংস্থা বাংলাদেশে আসছে। তারা মাল্টিপারপাস আদলের সার্টিফিকেট জোগাড় করেই প্রতারণার পসরা নিয়ে বসছে। কেউবা শুধু ট্রেড লাইসেন্স করেই 'অলৌকিক পদ্ধতির' বাণিজ্য চালিয়ে যাচ্ছে। দেশে এমএলএম কোম্পানির অনুমোদন দেওয়ার বিধান না থাকার সুযোগকে কাজে লাগায় প্রতারকচক্র। কেবলমাত্র জয়েন্টস্টকের অনুমোদন আর নামের ছাড়পত্র নিয়েই প্রতারণার বাণিজ্য খুলে বসে। সার্টিফিকেট অব ইনকরপোরেশনের অনুমোদন নেওয়ার সময় তারা 'ক্যাটাগরি' কলামে ব্যবসার ধরন হিসেবে আমদানি-রপ্তানি, হারবাল পণ্য উৎপাদন, বিক্রি, আইটি সফটওয়্যার, বহুমুখী পণ্য বিপণন, ট্রাভেল এজেন্সি, বৃক্ষে বিনিয়োগ, অদৃশ্য স্বর্ণ ব্যবসা, সর্বরোগ মুক্তির ব্রেইসলেট বিপণন ইত্যাদি উল্লেখ করে থাকে। এদের বেশির ভাগেরই যথাযথ কর্তৃপক্ষের বৈধ অনুমোদন নেই, অফিস নেই, দেশে প্রচলিত ব্যবসা-বাণিজ্য, রীতিনীতির কোনো মিল নেই- আছে শুধু অলীক স্বপ্ন আর চাপাবাজি।

 

বাংলাদেশ ব্যাংকের উত্থাপিত অভিযোগ অনুযায়ী অধিকাংশ এমএলএম কোম্পানি অবৈধ ব্যাংকিং ও হুন্ডির কার্যক্রম চালাচ্ছে। এ থেকে বিরত থাকার জন্য মাঝেমধ্যে সতর্ক বিজ্ঞাপনও প্রচার করে থাকে ব্যাংক। কিন্তু হুন্ডি বন্ধ হয় না। নব্বই'র দশকে ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুরে হুন্ডি কাজলের নাটকীয় বাণিজ্যের ফাঁদে পড়ে অসহায় মানুষের সর্বস্ব হারানোর কাহিনী সবারই কমবেশি জানা। এরপর টাঙ্গাইলের আইটিসিএল, মানিকগঞ্জের জিটিসিএল, ঢাকার যুবক, আর্থ ফাউন্ডেশন, জিজিএন, ইউনেপে-টু-ইউ, নিউওয়ে, গ্রেট ইন্টারন্যাশনাল, রিয়েল সার্ভে, স্পিক এশিয়ার লোক ঠকানো প্রতারণার ব্যবসা দেশজুড়ে তোলপাড় সৃষ্টি করে। এসব এমএলএম কোম্পানি প্রতারণার মাধ্যমে কোটি কোটি টাকা লুটে নিয়ে লাপাত্তা হয়ে গেছে। এরমধ্যে ইউনিপেটুইউ প্রায় ১৫ হাজার কোটি টাকা ও গ্রেট ইন্টারন্যাশনাল কর্মকর্তারা দুই হাজার কোটি টাকা নিয়ে উধাও হয়েছেন। এ দুটি কোম্পানির ২০ লক্ষাধিক গ্রাহক সব হারিয়ে পথে বসার উপক্রম হয়েছে। এরপর থেকেই দেশে এমএলএম ব্যবসাটি 'প্রতারণার আতঙ্ক' হয়ে দাঁড়িয়েছে। অল্প পরিশ্রমে কোটিপতি হওয়ার স্বপ্নে বিভোর অনেকেই নিজের সর্বস্ব হারাচ্ছেন। লোভের বশবর্তী হয়ে বারবার প্রতারণার ফাঁদে পড়ছেন- এমন লোকজনের সংখ্যাও কম নয়। তাদের লোভকে পুঁজি করে কথিত এমএলএম কোম্পানির প্রতারণামূলক কর্মকাণ্ড দাপটের সঙ্গেই চলছে বছরের পর বছর ধরে। সরকারের দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা তা দেখেশুনেও না দেখা-না জানার ভান করে থাকেন। এমএলএম কোম্পানিগুলো বরাবরই সরকারঘনিষ্ঠ লোকজনকে কোম্পানির সঙ্গে নানাভাবে জড়িয়ে রাখে। কাউকে দেওয়া হয় উপদেষ্টার চেয়ার, আবার কারও কারও জন্য রাখা হয় অতি লাভের অংশীদার। মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী ও ক্ষমতাসীন দলের প্রভাবশালী নেতাদের দ্বারা উদ্বোধনের মাধ্যমেই প্রতারক কোম্পানিগুলো যাত্রা শুরু করে।

 

নজর সবার সিলেট-চট্টগ্রাম : প্রতারণার মাধ্যমে কোটি কোটি টাকা হাতানোর জন্য গজিয়ে ওঠা হায় হায় কোম্পানিগুলোর নজর থাকে সিলেটমুখী। প্রবাসী অধ্যুষিত ধনাঢ্য মানুষজনকে টার্গেট করেই ঝাঁপিয়ে পড়ে দালালচক্র। নানা কৌশলে ফুসলিয়ে তাদের থেকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়াও সহজ হয়। এ কারণে সিলেট নগরীতেই নতুন-পুরনো মিলে ৩৭টি এমএলএম কোম্পানির কার্যক্রম রয়েছে। এমএলএম কোম্পানির মধ্যে ডেসটিনি-২০০০ লিমিটেড, ভিশন পাস, স্পিক এশিয়া, আপট্রেডটুইউ, টিবিআই, ইউনিগেট, ইউনাইকো, সাকসেস ট্রেড, রিচ ট্রেড লিমিটেড, এমেরিকান গোল্ডেন ট্রেড, গোল্ডেন গ্লোবাল, ভার্জিন গোল্ড, ইজেন ইন্টারন্যাশনাল, এশিয়ান বোল, ইউনিপে ইন্টারন্যাশনাল, জীবনধারা, রিচ বিজনেস সিস্টেম, লাঙ্ারি ভেঞ্চার বেশ মজবুত আসন গেড়েই আছে। প্রতিষ্ঠানগুলো দেড়শ কোটি থেকে নয়শ কোটি টাকা পর্যন্ত বিনিয়োগ সংগ্রহ করে নিয়েছে বলেও স্থানীয় সূত্রগুলো নিশ্চিত করেছে। বিভিন্ন হায় হায় কোম্পানির কর্ণধাররা সিলেটের পর পরই টার্গেট করে বাণিজ্য নগরী চট্টগ্রামকে। সেখানে ব্যবসা-বাণিজ্য চাঙ্গা থাকায় এবং বন্দরকেন্দ্রিক নানা কর্মকাণ্ডে মোটা অঙ্কের টাকার ছড়াছড়ি থাকায় বিভিন্ন গ্রুপের কাছেই চট্টগ্রাম অঞ্চলটি বেশ লোভনীয় স্থান হিসেবেই চিহ্নিত থাকে। তবে মোটা অঙ্কের টাকা খুইয়ে যশোর, বগুড়া, নারায়ণগঞ্জ, সাভার, কেরানীগঞ্জ, কুষ্টিয়া ও ঝিনাইদহেরও প্রচুর সংখ্যক লোক রীতিমতো পথের ফকিরে পরিণত হয়েছে।মন্ত্র।

 

 

Want to say something about this article you? : Post your oepeninon here!

 

If you are interested to BLOGGING about MLM or other you can join with us @ my.black-iz.com

To give your openion about MLMNEWS24 : Please use our Openion box

 

 

 

Thank you again to stay with us, and hope that you will stay forever with BLACK iz, MLM NEWS 24

www.black-iz.com / mlmnews24.com

Increase your company’s popularity by advertise

Increase your company’s popularity by advertise with MLM NEWS 24.

Continue Reading »



Share this page with your friends,. ................Join now @ আমার BLACK iz,. আমার BLOG.

You may also find us on these places,.

vinno Khobor


Loading

  • Advertis with us at only 1-5$, to know more please contact (or click here to read more) @ : 0167-1502396, 01670-257436 !!
    We have more then 30,000 visitors, it is a cheaf deal to increase your populerity reapidly read more or call @ 0167-1502396, 01670-257436 !!
    MLM NEWS 24 is the biggest and the trusted netorking field of Bangladeshi MLM networkers, read more or call @ 0167-1502396, 01670-257436 !!
    We are always waiting for you and our door is always open for you, ADD YOUR COMPANY, ARTICLES, ADDVERTISMENT.and more here.

sss